This is an Educational website. We provides various information about Education and Scholarship. All the scholarships information on this site collected from respective official site.This site also describe about question and answer on science subject of all classes and provide some notes and give tips.

Breaking News

CLICK HEREদ্বাদশ শ্রেণীর প্রত্যহিক জীবনে রসায়ন অধ্যায়ের প্রশ্ম-উত্তর। CLICK HEREএকাদশ শ্রেণীর তাপগতিবিদ্যা অধ্যায়ের কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ম ও তার উত্তর।

Classification of Elements and Periodicity in Properties for Class 11


মৌল সমূহের শ্রেণী বিন্যাস ও ধর্মের পুনরাবৃত্তি (Classification of Elements and Periodicity in Properties) 

Classification of Elements and Periodicity in Properties


    মৌল সমূহের শ্রেণী বিন্যাস ও ধর্মের পুনরাবৃত্তি (Classification of Elements and Periodicity in Properties)  অধ্যায়ের M.C.Q. এর উত্তরঃ-


1. কোনটির ইলেকট্রন আসক্তি সর্বাধিক- F / Cl / Br / I

উঃ- Cl

2.  কোনটি্র আয়নন বিভব সর্বোচ্চ- B , C , N , O

উঃ-  B < C < O < N

3. ব্যাসার্ধের উর্দ্ধক্রমে সাজাও- Mg2+, Na+ , F- , O2-  (H.S-

2015) (H.S-2016)

উঃ- Mg2+< Na+ < F- < O2-  

4. Na, Mg, Al, Si আয়নীভবন ক্রম কিরূপ। (H.S-2015)

উঃ- Na< Al< Mg< Si

5. জারণ ক্ষমতা অনুযায়ী সাজাও- HCl , HBr , HI , HF  (H.S-2015)

উঃ- HF < HCl < HBr < HI

6. পর্যায় সারণীতে মৌল গুলির ধাতব ধর্ম একটি শ্রেণীতে নীচের দিকে-   বৃদ্ধি        পায়। (H.S-2015)

7. ব্যাসার্ধের উর্দ্ধক্রমে সাজাও- Al 3+, Na+ , F- , O2-, N3-     

(H.S-2014)

উঃ-    Al 3+< Na+ < F- < O2-< N3-     

8. NO2 , Al2O3 , SiO2 , ClO2 আম্লিকতা বৃদ্ধি অনুযায়ী 

সাজাও. (H.S-2014)

উঃ- Al2O3 < SiO2 < NO2 < ClO2

9. ক্রমবর্ধ্মান আয়নীয় ব্যাসার্ধ অনুযায়ী সাজাও- F- , Mg2+, Al 3+O2-    (H.S-2013)

উঃ-   Al 3+ < Mg2+ < F-  < O2-   

10. কোনটির ইলেকট্রন আসক্তি সর্বনিম্ন- C / P / O / S     

(H.S-2013)

উঃ-  C

11. Na2O , B2O3 , Al2O3 , MgO ক্ষারকীয়তা অনুযায়ী 
সাজাও ।(H.S-2013)

উঃ- B2O3 < Al2O3< MgO < Na2O

12. তড়িৎ ঋণাত্মকতা অনুযায়ী সাজাও- Be , I , Cl , O    

(H.S-2013)

উঃ-     Be < I < Cl < O



    মৌল সমূহের শ্রেণী বিন্যাস ও ধর্মের পুনরাবৃত্তি (Classification of Elements and Periodicity in Propertiesঅধ্যায়ের V.S.A.Q. এর উত্তরঃ-



1. Al2O3, SO3, SO2, ও P2O5 কোনটি সর্বাধিক আম্লিক।

উঃ-  SO3

2. পর্যায় সারণীতে সর্বাপেক্ষা তড়িৎ অপরাধর্মী মৌল 
কোনটি?

উঃ- ফ্লোরিন (F)

3. সন্ধিগত মৌলের যোজ্যতা কক্ষের ইলেকট্রন বিন্যাস 

কিরুপ ?

উঃ- (n-1)d1-9 ns2

4. পর্যায় সারণীর বাম দিক থেকে ডান দিকে ও উপর থেকে 

নীচে জারণ ও বিজারণ ধর্মের কিরুপ পরিবর্তন হয়।

উঃ- পর্যায় সারণীর বাম দিক থেকে ডান দিকে জারণ ক্ষমতা বৃদ্ধি 

পায় এবং বিজারণ ক্ষমতা হ্রাস পায়। আবার উপর থেকে নীচে 

বিজারণ ক্ষমতা বৃদ্ধি এবং জারণ ক্ষমতা হ্রাস পায়।

5. p ব্লকে উপস্থিত একটি মৌলের নাম লেখ যার কোনো p 

ইলেকট্রন নেই।

উঃ-  He ( 1s2)

6. Li, Be, Mg, B পর্যায় সারণীতে কোন্ দুটির মধ্যে 

কোনাকুনি সম্পর্ক আছে।

উঃ-     Li à Mg

7. Mg, P, Cl, Na আকারের উর্দ্ধক্রমে সাজাও।

উঃ-  Cl < P < Mg< Na

8. একা বোরন, একা সিলিকন, একা অ্যালুমিনিয়াম মৌল 
গুলি বর্তমানে কি নামে পরিচিত ?

উঃ-   একা বোরন- Sc      একা সিলিকন- Ge       একা 


          অ্যালুমিনিয়াম- Ga

9. Cr পরমানুটি কোন্ পর্যায় ও কোন্ শ্রেণীতে অবস্থান করে।

উঃ- Cr - 3d5 4s1 চতুর্থ পর্যায় ও 6 নং শ্রেণীতে অবস্থান করে।

10. দুটি বর ধাতুর নাম লেখো।

উঃ- প্ল্যাটিনাম (Pt) ও গোল্ড (Au)

11. কোন আয়নটি O2- আয়নের সঙ্গে আইসোইলেক্ট্রিক নয়- N3-/ Na+/ F-/ Ti+

উঃ- Ti+

12. সর্বোচ্চ ইলেকট্রন আসক্তি বিশিষ্ট মৌল কোনটি ?

উঃ- ক্লোরিন 

15. d ব্লক মৌলগুলির সাধারণ ইলেকট্রন বিন্যাস লেখো।

উঃ- (n-1)d1-10 ns1-2 

16. f ব্লক মৌলের সাধারণ ইলেকট্রন বিন্যাস লেখো।

উঃ- (n-2)f1-14 (n-1)d0-1 ns2

17. ক্রম বর্ধ্মান ক্ষারীয় ধর্ম অনুযায়ী সাজাও- MgO, ZnO, 

CaO, Na2O, CuO

উঃ- CuO< ZnO< MgO< CaO< Na2O 

18. দুটি বিরল মৃত্তিকা মৌলের নাম লেখো।

উঃ- সিরিয়াম ( Ce 58 ), লুটেশিয়াম ( Lu71 )

19. জারণ ক্ষমতা অনুযায়ী সাজাও- F, Cl, Br, I      (H.S-
2013)

উঃ-  F > Cl > Br > I

20. K+ , Cl- এর ইলেকট্রন সমান। তাদের ব্যাসার্ধ কি সমান 

হবে ।

উঃ- K+  ইলেকট্রন =18, প্রোটন =19 ব্যাসার্ধ কম হবে।
       
       Cl- ইলেকট্রন =18, প্রোটন =17 ব্যাসার্ধ বেশি হবে।

21. Mg, Al, Si, Na আয়নন শক্তির উর্দ্ধক্রমে সাজাও ।

উঃ-  Na< Al< Mg < Si

22. (Ar)3d10 4s2 দীর্ঘ পর্যায় সারণীতে অবস্থান কি হবে ? 

(H.S-2016)

উঃ- মৌলটি d ব্লকের অন্তর্গত । পর্যায় সংখ্যা  4 ও শ্রেণী সংখ্যা 12

23. পর্যায় সারণীতে সবচেয়ে তড়িৎ ঋণাত্মক ও সবচেয়ে 

তড়িৎ ধণাত্মক মৌল দুটির নাম লেখো। (2016)

উঃ-    সবচেয়ে তড়িৎ ঋণাত্মক মৌল- F
          
           সবচেয়ে তড়িৎ ধণাত্মক মৌল-Cs


24. আম্লিকতা বৃদ্ধি অনুযায়ী সাজাও- Li2O, BeO, B2O3, CO2      (H.S-2016)

উঃ-    Li2O <  BeO <  B2O3 < CO2 

25. NaCl, MgCl2, AlCl3  গলনাঙ্কের উর্দ্ধক্রমে সাজাও ।

উঃ-    AlCl3 < MgCl2 < NaCl



 মৌল সমূহের শ্রেণী বিন্যাস ও ধর্মের পুনরাবৃত্তি (Classification of Elements and Periodicity in Properties) অধ্যায়ের S.A.Q. এর উত্তরঃ-


1. Sn2+ ও Sn4+ কোনটির তড়িৎ ঋণাত্মকতা(Electronegetivity) 

বেশি এবং কেন (H.S-2017)



উঃ- Sn4+এর তড়িৎ ঋণাত্মকতা বেশি। একই পরমাণু দুই প্রকার 

ক্যাটায়ন গঠন করলে যে ক্যাটায়নের ধনাত্মক আধান বেশি হয় 

তার তড়িৎ ঋণাত্মকতা বেশি হয়। এর কারন হল অধিক ধনাত্মক আধান যুক্ত ক্যাটায়নের আকার অপেক্ষাকৃত ছোটো হওয়ায় ইলেকট্রনের প্রতি আকর্ষন বেশি হয়।


2. Cu , K কোনটির আয়নায়ন এনথ্যালপি (Ionisation 

Potential) বেশি এবং কেন? (H.S-2016)

উঃ- Cu , K পরমাণুর সর্ববহিস্থ কক্ষের ইলেকট্রন বিন্যাস 4s1. কিন্তু 

Cu এ উপস্থিত 3d উপকক্ষের ইলেকট্রন গুলির দূর্বল আবরণী 

প্রভাবের জন্য বাইরের কক্ষের ইলেকট্রনের প্রতি নিউক্লিয়াসের 

আকর্ষন বল K অপেক্ষা বেশি হয়। তাই Cu এর আয়নায়ন 

এনথ্যালপির মান K অপেক্ষা বেশি হয়।


3. অক্সিজেনের প্রথম ইলেকট্রন আসক্তির মান ধণাত্মক 

কিন্তু দ্বিতীয় ইলেকট্রন আসক্তির মান ঋণাত্মক- ব্যাখ্যা করো।

উঃ- O8   à 1s2 2s2 2p4

অক্সিজেনের প্রথম ইলেকট্রন আসক্তির ক্ষেত্রে বাইরে থেকে 

কোনো শক্তির প্রয়োজন হয় না। এক্ষেত্রে তাপ উৎপন্ন হয়। তাই প্রথম ইলেকট্রন আসক্তি ঋণাত্মক। কিন্তু দ্বিতীয় ইলেকট্রন আসক্তির ক্ষেত্রে ইলেকট্রন- ইলেকট্রন বিকর্ষন বলের জন্য বাইরে থেকে শক্তির প্রয়োজন। এক্ষেত্রে এটি তাপ শোষক প্রক্রিয়া। তাই ইলেকট্রন আসক্তি ধণাত্মক হয়।


4. ক্লোরিন (Cl) পরমানুর পারমাণবিক ব্যাসার্ধ কম কিন্তু 

ক্লোরাইড (Cl-) আয়নের আয়নীয় ব্যাসার্ধ বেশি হয় কেন ?


উঃ- কোনো মৌলের পরমানুর ইলেকট্রন সংখ্যা অপেক্ষা সেটির 

থেকে উৎপন্ন অ্যানায়নের ইলেকট্রন সংখ্যা বেশি হওয়ার জন্য 

পরমানুর নিউক্লিয়াসের ধনাত্মক আধান পরমানুর ইলেকট্রন 

গুলিকে যতটা আকর্ষন করতে পারে অ্যানায়নের একই নিউক্লিয়ার 

চার্জ অপেক্ষাকৃত বেশি ইলেকট্রন গুলিকে ততটা আকর্ষন করতে 

পারে না। ফলে অ্যানায়নের ইলেকট্রন সমূহের উপর নিউক্লিয়াসের 

আকর্ষন বল হ্রাস পায়। তাছাড়াও ইলেকট্রন সমূহের বিকর্ষনের 

ফলেও অ্যানায়নের ব্যাসার্ধ বেশি হয়।  সেই কারনে ক্লোরাইড (Cl-

আয়নের আয়নীয় ব্যাসার্ধ বেশি হয়।


5. সন্ধিগত মৌল কাদের বলে ?

উঃ- যদি কোনো মৌলের স্থিতাবস্থায় বা কোনো যৌগের মধ্যে কোনো স্থায়ী জারণ অবস্থায় আংশিক পূর্ণ d অর্বিট্যাল থাকে তবে সেই মৌলকে সন্ধিগত মৌল বলে।

6. সন্ধিগত মৌলের যোজ্যতা কক্ষের ইলেকট্রন বিন্যাস

 কিরূপ ?

উঃ-   (n-1)d1-9 ns2

7. Cu সন্ধিগত মৌল হলেও  Zn নয় কেন?

উঃ- Cu – 1s2 2s2 2p6 3s2 3p6 3d10 4s1   
      
 Cu2+- 1s2 2s2 2p6 3s2 3p6 3d9

Cu2+ আয়নে d কক্ষক আংশিক পূর্ণ থাকায় Cu সন্ধিগত মৌল।

Zn - 1s2 2s2 2p6 3s2 3p6 3d10 4s2

Zn 2+-1s2 2s2 2p6 3s2 3p6 3d10

Zn এর একমাত্র স্বাভাবিক যোজ্যতা 2 । অর্থাৎ Zn, Zn 2+ আয়ন 

গঠন করে। এখানে d কক্ষক সম্পূর্ণ ভাবে পূর্ণ অবস্থায় থাকে। সেই 

জন্য Zn সন্ধিগত মৌল নয়।


8. Zn কে সন্ধিগত মৌল বলা হয় না কেন?

উঃ- স্থিতাবস্থায় Zn এর ইলেকট্রন বিন্যাস  Zn- 1s2 2s2 2p6 3s2 3p6 3d10 4s2

এবং স্থায়ী জারণ অবস্থা Zn 2+ আয়নের ইলেকট্রন বিন্যাস  1s2 2s2 

2p6 3s2 3p6 3d10  । স্থিতাবস্থা ও স্থায়ী জারণ অবস্থা উভয় ক্ষেত্রে d 

অর্বিট্যাল পূর্ণ থাকায় Zn সন্ধিগত মৌল নয়।


9. d ব্লক মৌলের বৈশিষ্ট্য গুলি লেখো।

উঃ- ১) d ব্লকের সমস্ত মৌল ধাতু। ২) এদের একাধিক যোজ্যতা 

দেখা যায় (Zn ছাড়া) । ৩) এরা জটিল লবণ গঠন করে। ৪) এদের 

খালি d কক্ষক থাকলে এরা রঙিন জটিল যৌগ গঠন করতে পারে।

 ৫) এরা তাপ ও তড়িতের উত্তম পরিবাহী।


10. ল্যান্থানাইড সংকোচন বলতে কী বোঝ ।

উঃ- ল্যান্থানাইড মৌলগুলির (Ce58 – Lu71) ক্ষেত্রে দেখা যায় যে

 পরমানু ক্রমাঙ্ক বৃদ্ধির সঙ্গে পারমাণবিক ব্যাসার্ধ কমতে থাকে। 

ল্যান্থানাইড মৌলগুলির এরূপ পারমাণবিক ব্যাসার্ধ হ্রাসের ঘটনাকে

 ল্যান্থানাইড সংকোচন বলে।


11. ল্যান্থানাইড সংকোচনের কারন কী ?

উঃ- ল্যান্থানাইড মৌলগুলির ক্ষেত্রে 5d কক্ষকে ইলেকট্রন প্রবেশ 

না করে 4f কক্ষকে এক এক করে ইলেকট্রন প্রবেশ করে। f 

কক্ষকের আবরণী প্রভাব সবচেয়ে কম। পরমানু ক্রমাঙ্ক বৃদ্ধির 

সঙ্গে সঙ্গে 4f কক্ষকে ইলেকট্রন প্রবেশ করে।  কিন্তু 4f কক্ষকের 

আবরণী ক্ষমতা কম হওয়ার জন্য নিউক্লিয়াসের ধনাত্মক আধান 

বৃদ্ধির ফলে বাইরের কক্ষের ইলেকট্রনের প্রতি নিউক্লিয়াসের 

আকর্ষন বৃদ্ধি পায়। এজন্য ল্যান্থানাইড মৌলগুলির পরমানু ক্রমাঙ্ক বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে পারমাণবিক ব্যাসার্ধ ও আয়নীয় ব্যাসার্ধের সংকোচন ঘটে।

12. Be  এর IP B অপেক্ষা বেশি কেন?

উঃ-  4Be- 1s2 2s2      5B- 1s2 2s2 2p1

Be  এর সর্ববহিস্থ 2s উপকক্ষটি  ইলেকট্রন দ্বারা সম্পূর্ণ ভর্তি ।

 এইজন্য Be পরমানু অধিক স্থায়ী। ফলে Be এর 2s উপকক্ষ থেকে 

ইলেকট্রন অপসারিত করতে বেশি শক্তির প্রয়োজন । অপরদিকে B 

এর 2p উপকক্ষটি  ইলেকট্রন দ্বারা আংশিক পূর্ণ থাকায় 

ইলেকট্রনটিকে অপসারিত করতে কম শক্তির প্রয়োজন। এজন্য 

Be  এর IP B অপেক্ষা বেশি।


13. ক্লোরিন এর ইলেকট্রন আসক্তি ফ্লোরিন এর চেয়ে বেশি 

কেন?

উঃ- ফ্লোরিন পরমানুর আকার খুব ছোট হওয়ার জন্য 2p উপস্তরের 

ছোটো জায়গায় ইলেকট্রনের মধ্যে বিকর্ষন দেখা যায়। এর ফলে 

অতিরিক্ত ইলেকট্রনটি নিউক্লিয়াস দ্বারা বেশি আকর্ষিত হয় না। 

ফলে ফ্লোরিন এর ইলেকট্রন আসক্তি কম হয়। অপর দিকে ক্লোরিন 

পরমানুর আকার বড়ো হওয়ার জন্য 3p উপস্তরে ইলেকট্রন গুলির

 মধ্যে বিকর্ষন বল তত বেশি হয় না। ফলে অতিরিক্ত ইলেকট্রনটি 

ক্লোরিন এর নিউক্লিয়াস দ্বারা তীব্রভাবে আকর্ষিত হয় এবং এর 

ইলেকট্রন আসক্তির মান বেশি হয়।


14. কোনো মৌলের পারমাণবিক ব্যাসার্ধের থেকে মৌলটির 
অ্যানায়নের ব্যাসার্ধ বেশি এবং ক্যাটায়নের ব্যাসার্ধ কম হয় 
কেন?

উঃ- কোনো পরমানুর ক্যাটায়নের ক্ষেত্রে ইলেকট্রন সংখ্যা কম 

হওয়ার জন্য বাইরের কক্ষের ইলেকট্রনের প্রতি নিউক্লিয়াসের 

আকর্ষন বল বেশি হয় এবং ক্যাটায়নের ব্যাসার্ধ কম হয়।

কিন্তু অ্যানায়নের ক্ষেত্রে ইলেকট্রন সংখ্যা বেশি হওয়ার জন্য 

বাইরের কক্ষের ইলেকট্রনের প্রতি নিউক্লিয়াসের আকর্ষন বল কম 

হয় এবং অ্যানায়নের ব্যাসার্ধ বেশি হয়।

15. আয়নন বিভব (Ionisation Potential)  বলতে কি বোঝ? কক্ষের আবরণী ক্ষমতার ওপরএটি কিভাবে নির্ভরশীল।

উঃ- ভূমিস্তরে থাকাকালীন কোনো গ্যাসীয় পরমানুর যোজ্যতা 

কক্ষের সবচেয়ে দূর্বল্ভাবে আবদ্ধ ইলেকট্রনটিকে বিচ্ছিন্ন করে

 একক ধণাত্মক আয়নে পরিণত করতে যে নুন্যতম শক্তির 

প্রয়োজন হয়, তাকে আয়নন বিভব বলে।

আবরণী প্রভাব যত বেশি হবে আয়নন বিভবের মান তত কম হবে।

16. N2 এর আয়নন বিভব O2 অপেক্ষা বেশি কেন?

উঃ-   N-1s2 2s2 2p3
O- 1s2 2s2 2p4 

N পরমানুর 2p উপকক্ষটি ইলেকট্রন দ্বারা অর্দ্ধপূর্ণ কিন্তু O

 পরমানুর 2p উপকক্ষ ইলেকট্রন দ্বারা আংশিক পূর্ণ অবস্থায় থাকে। 
অর্দ্ধপূর্ণ কক্ষক বেশি স্থায়ী হওয়ায় N এর আয়নন বিভব O  অপেক্ষা বেশি হয়।

অর্দ্ধপূর্ণ কক্ষক বেশি স্থায়ী হওয়ায় একটি ইলেকট্রন অপসারিত

 করে একক ধণাত্মক আয়নে পরিণত করতে বেশি শক্তির প্রয়োজন

 হয়। তাই আয়নীভবন বিভবের মান বেশি হয়।


17. কৌনিক সম্পর্ক বলতে কি বোঝ।

উঃ- পর্যায় সারণীর কোনো একটি মৌল থেকে শুরু করে তার পরের পর্যায়ের পরের শ্রেণীর মৌলটির রাসায়নিক ধর্মের সাদৃশ্য দেখা যায়। ওই মৌল দুটি একটি কল্পিত চতুর্ভূজের দুই বিপরীত কৌনিক বিন্দুতে অবস্থান করে । দুটি ভিন্ন শ্রেণীর মৌলের মধ্যে কোনাকুনি অবস্থানে রাসায়নিক সম্পর্ক স্থাপনকে কৌনিক সম্পর্ক বলে।

                                          Li        Be       B

                                          Na       Mg      Al


18. যদিও Li  ও Mg পর্যায় সারণীতে ভিন্ন ভিন্ন শ্রেণীতে 

অবস্থান করে, কিন্তু তাদের ধর্মে প্রচুর সাদৃশ্য আছে। ব্যাখ্যা করো।

উঃ- Li  ও Mg পর্যায় সারণীতে ভিন্ন ভিন্ন শ্রেণীতে অবস্থান করে। মৌল দুটির মধ্যে কৌনিক সম্পর্ক স্থাপিত হওয়ায় এদের ধর্মে প্রচুর সাদৃশ্য আছে।

Click here to download pdf


পরমাণুর গঠন অধ্যায়ের M.C.Q. প্রশ্মের pdf- Click here 

পদার্থের গ্যাসীয় ও তরল অবস্থা- Click here 


Previous
Next Post »